ঢাকা ০৯:৫২ অপরাহ্ন, শনিবার, ২০ এপ্রিল ২০২৪, ৭ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

আর্থিক সংকট মেটাতেই ভাড়া দেয়া হচ্ছে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীর বাসভবন

দেশের আর্থিক টানাপোড়েন মেটানোর লক্ষ্যেই ভাড়া দেয়া হচ্ছে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের জন্য বরাদ্দ করা সরকারি বাসভবনটি। বর্তমান বাজার দরেই ভবনটি ভাড়া দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে ভারতীয় গণমাধ্যম এনডিটিভি।জানা যায়, ২০১৯ সালে ইমরান খান তার সরকারি বাসভবনটি ছেড়ে দেন। সে সময় পাকিস্তান প্রশাসন প্রধানমন্ত্রীর বাসভবনটি একটি বিশ্ববিদ্যালয়ে রূপান্তরিত করার প্রস্তাব করেছিল। এরপরেই তা ছাড়ার সিদ্ধান্ত নেন ইমরান। আপাতত বর্তমান আর্থিক সংকট মেটাতে আবাসন ভাড়া দেয়ার পথেই হাঁটছে প্রশাসন। পাকিস্তানের স্থানীয় গণমাধ্যম জানায়, ইসলামাবাদের রেড জোনে অবস্থিত প্রধানমন্ত্রীর বাসভবনটি এবার থেকে সাংস্কৃতিক, ফ্যাশন, শিক্ষা সংক্রান্ত এবং অন্য অনুষ্ঠানের জন্য ভাড়া দেওয়া হবে।এজন্য দুটি কমিটিও তৈরি করা হয়েছে। যারা মূলত বাসভবনটি ভাড়া সংক্রান্ত সব বিষয় খতিয়ে দেখবে এবং নিয়মশৃঙ্খলা বজায় রাখবে। কিভাবে প্রধানমন্ত্রীর বাসভবনের ভাড়া থেকে অর্থ সংগ্রহ করা সম্ভব, তা নিয়ে ক্যাবিনেট বৈঠকে আলোচনাও হবে বলে জানা গেছে।জানা যায়, বাসভবনটির অডিটোরিয়াম, দুটি অতিথিশালা, বাগানের অংশটি ভাড়ার জন্য প্রস্তুত করা হচ্ছে। আন্তর্জাতিক মানের সেমিনারের জন্যও সাজানো হয়েছে অডিটোরিয়াম। উল্লেখ্য, অর্থাভাব মেটাতেই প্রশাসনের এই সিদ্ধান্ত বলে মনে করা হচ্ছে। বহুদিন ধরেই ইমরান খান প্রধানমন্ত্রীর বাসভবন ব্যবহার করেন না। তিনি থাকেন বানী গালা বাসভবনে।

ট্যাগস
জনপ্রিয় সংবাদ

আর্থিক সংকট মেটাতেই ভাড়া দেয়া হচ্ছে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীর বাসভবন

আপডেট সময় ১০:৩২:১৫ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৫ অগাস্ট ২০২১

দেশের আর্থিক টানাপোড়েন মেটানোর লক্ষ্যেই ভাড়া দেয়া হচ্ছে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের জন্য বরাদ্দ করা সরকারি বাসভবনটি। বর্তমান বাজার দরেই ভবনটি ভাড়া দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে ভারতীয় গণমাধ্যম এনডিটিভি।জানা যায়, ২০১৯ সালে ইমরান খান তার সরকারি বাসভবনটি ছেড়ে দেন। সে সময় পাকিস্তান প্রশাসন প্রধানমন্ত্রীর বাসভবনটি একটি বিশ্ববিদ্যালয়ে রূপান্তরিত করার প্রস্তাব করেছিল। এরপরেই তা ছাড়ার সিদ্ধান্ত নেন ইমরান। আপাতত বর্তমান আর্থিক সংকট মেটাতে আবাসন ভাড়া দেয়ার পথেই হাঁটছে প্রশাসন। পাকিস্তানের স্থানীয় গণমাধ্যম জানায়, ইসলামাবাদের রেড জোনে অবস্থিত প্রধানমন্ত্রীর বাসভবনটি এবার থেকে সাংস্কৃতিক, ফ্যাশন, শিক্ষা সংক্রান্ত এবং অন্য অনুষ্ঠানের জন্য ভাড়া দেওয়া হবে।এজন্য দুটি কমিটিও তৈরি করা হয়েছে। যারা মূলত বাসভবনটি ভাড়া সংক্রান্ত সব বিষয় খতিয়ে দেখবে এবং নিয়মশৃঙ্খলা বজায় রাখবে। কিভাবে প্রধানমন্ত্রীর বাসভবনের ভাড়া থেকে অর্থ সংগ্রহ করা সম্ভব, তা নিয়ে ক্যাবিনেট বৈঠকে আলোচনাও হবে বলে জানা গেছে।জানা যায়, বাসভবনটির অডিটোরিয়াম, দুটি অতিথিশালা, বাগানের অংশটি ভাড়ার জন্য প্রস্তুত করা হচ্ছে। আন্তর্জাতিক মানের সেমিনারের জন্যও সাজানো হয়েছে অডিটোরিয়াম। উল্লেখ্য, অর্থাভাব মেটাতেই প্রশাসনের এই সিদ্ধান্ত বলে মনে করা হচ্ছে। বহুদিন ধরেই ইমরান খান প্রধানমন্ত্রীর বাসভবন ব্যবহার করেন না। তিনি থাকেন বানী গালা বাসভবনে।