ঢাকা ০২:৪৩ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৭ মে ২০২৪, ৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

পশ্চিম বাংলায় আবারও ক্ষমতায় আসছে তৃনমূল কংগ্রেস

ভারতের বিজেপিকে অনেকখানি পিছনে ফেলে ম্যাজিক ফিগারের অনেক বেশি আসন নিয়ে আবারও পশ্চিম বাংলায় ক্ষমতায় আসছে তৃণমূল কংগ্রেস। বাংলার মেয়ের কাছেই রইলো বাংলা। এনিয়ে টানা তৃতীয়বারের মতো পশ্চিম বাংলার মুখ্যমন্ত্রী হতে যাচ্ছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।
ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়ার বরাতে জানা যায়, পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভায় ২৯৪ টি আসনের মধ্যে ভোট হয়েছে ২৯২ টি আসনে। এ খবর লেখা পর্যন্ত মমতার তৃণমূল কংগ্রেস পেয়েছে ২১২ টি, বিজেপি পেয়েছে ৭২ টি, সংযুক্ত বামমোর্চা ১টি ও অন্যান্যরা পেয়েছে দুইটি করে আসন।
ইতোমধ্যেই মমতাকে অভিনন্দন জানিয়েছেন, ভারতের প্রতিরক্ষা মন্ত্রী রাজনাথ সিং। তিনি এক বিবৃতিতে বলেন, পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচনে জয়ী হওয়ার জন্য দিদিকে অভিনন্দন। পরবর্তী মেয়াদে আসায় দিদিকে আমার শুভেচ্ছা।
করোনা পরিস্থিতির কারণে বিশেষ সতর্কতা জারি রয়েছে কলকাতা শহরে। তাই কালীঘাটে মমতার বাড়ির কাছাকাছি কাউকে যেতে দেওয়া হচ্ছে না। সমর্থকদের ভিড় জমতে শুরু করলেও কালীঘাট রোডের সামনেই আটকে দেওয়া হয় সবাকে। সেখানেই ঢাকঢোল বাজিয়ে উৎসবে শামিল হন তৃণমূলের কর্মী ও সমর্থকরা।

ট্যাগস

পশ্চিম বাংলায় আবারও ক্ষমতায় আসছে তৃনমূল কংগ্রেস

আপডেট সময় ০৫:২৮:১৬ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ৩ মে ২০২১

ভারতের বিজেপিকে অনেকখানি পিছনে ফেলে ম্যাজিক ফিগারের অনেক বেশি আসন নিয়ে আবারও পশ্চিম বাংলায় ক্ষমতায় আসছে তৃণমূল কংগ্রেস। বাংলার মেয়ের কাছেই রইলো বাংলা। এনিয়ে টানা তৃতীয়বারের মতো পশ্চিম বাংলার মুখ্যমন্ত্রী হতে যাচ্ছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।
ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়ার বরাতে জানা যায়, পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভায় ২৯৪ টি আসনের মধ্যে ভোট হয়েছে ২৯২ টি আসনে। এ খবর লেখা পর্যন্ত মমতার তৃণমূল কংগ্রেস পেয়েছে ২১২ টি, বিজেপি পেয়েছে ৭২ টি, সংযুক্ত বামমোর্চা ১টি ও অন্যান্যরা পেয়েছে দুইটি করে আসন।
ইতোমধ্যেই মমতাকে অভিনন্দন জানিয়েছেন, ভারতের প্রতিরক্ষা মন্ত্রী রাজনাথ সিং। তিনি এক বিবৃতিতে বলেন, পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচনে জয়ী হওয়ার জন্য দিদিকে অভিনন্দন। পরবর্তী মেয়াদে আসায় দিদিকে আমার শুভেচ্ছা।
করোনা পরিস্থিতির কারণে বিশেষ সতর্কতা জারি রয়েছে কলকাতা শহরে। তাই কালীঘাটে মমতার বাড়ির কাছাকাছি কাউকে যেতে দেওয়া হচ্ছে না। সমর্থকদের ভিড় জমতে শুরু করলেও কালীঘাট রোডের সামনেই আটকে দেওয়া হয় সবাকে। সেখানেই ঢাকঢোল বাজিয়ে উৎসবে শামিল হন তৃণমূলের কর্মী ও সমর্থকরা।