ঢাকা ০৬:৩০ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৬ মে ২০২৪, ২ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

নেশার টাকা জোগাতে মাকে গলা কেটে হত্যা করলো ছেলে!

লক্ষ্মীপুর সংবাদদাতাঃ  লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে ধারালো দা দিয়ে মাকে জবাই করে হত্যা করেছে পাষন্ড ছেলে। শুক্রবার সকালে উপজেলার সোনাপুর ইউনিয়নের রাখালীয়া গ্রামে সর্দরবাড়ীতে এ ঘটনা ঘটে। নিহত শেফালী বেগম (৬০) ঐ​ গ্রামের হোসেন আলীর স্ত্রী। এলাকাবাসীরা ঘাতক​ জাফর হোসেন (২৬) কে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে।
নিহত শেফালী বেগমের বড় ছেলে মোঃ জসিম উদ্দিন জানান, গত কয়েক মাস ধরে জাফর বন্ধু বান্ধবদের সাথে আড্ডা দিয়ে মাদক সেবন করে অনেক টাকা ঋণ করেছে। এই টাকার জন্য বিভিন্ন সময়ে তার মায়ের কাছে অর্থ দাবি করে আসছে এবং খারাপ আচরণ করে।
শুক্রবার সকালে মায়ের সাথে কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে তার মাকে বিছানায় ফেলে ধারালো দা দিয়ে গলাকেটে হত্যা করে। ঘটনার সময় প্রতিবেশীরা ছুটে এসে তাকে আটক করে পুলিশকে ফোন দেয়।
খবর পেয়ে রায়পুর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে গ্রামবাসীর কাছ থেকে নরপিচাশ জাফরকে তাদের হেফাজতে নেয়। একই সাথে পুলিশ শেফালী বেগমের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদনন্তের জন্য লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠায়।
রায়পুর থানার​ ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল জলিল বলেন, আটক জাফরের বিরুদ্ধে থানায় হত্যা মামলা দায়ের করে তাকে আদালতে সোপর্দ করা হবে। ছেলের মাদক সেবনের বিরোধের কারণে হত্যাকান্ড হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে নিশ্চিত হওয়া গেছে।
ট্যাগস

নেশার টাকা জোগাতে মাকে গলা কেটে হত্যা করলো ছেলে!

আপডেট সময় ০৫:৪২:৪৮ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৯ অগাস্ট ২০২০
লক্ষ্মীপুর সংবাদদাতাঃ  লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে ধারালো দা দিয়ে মাকে জবাই করে হত্যা করেছে পাষন্ড ছেলে। শুক্রবার সকালে উপজেলার সোনাপুর ইউনিয়নের রাখালীয়া গ্রামে সর্দরবাড়ীতে এ ঘটনা ঘটে। নিহত শেফালী বেগম (৬০) ঐ​ গ্রামের হোসেন আলীর স্ত্রী। এলাকাবাসীরা ঘাতক​ জাফর হোসেন (২৬) কে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে।
নিহত শেফালী বেগমের বড় ছেলে মোঃ জসিম উদ্দিন জানান, গত কয়েক মাস ধরে জাফর বন্ধু বান্ধবদের সাথে আড্ডা দিয়ে মাদক সেবন করে অনেক টাকা ঋণ করেছে। এই টাকার জন্য বিভিন্ন সময়ে তার মায়ের কাছে অর্থ দাবি করে আসছে এবং খারাপ আচরণ করে।
শুক্রবার সকালে মায়ের সাথে কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে তার মাকে বিছানায় ফেলে ধারালো দা দিয়ে গলাকেটে হত্যা করে। ঘটনার সময় প্রতিবেশীরা ছুটে এসে তাকে আটক করে পুলিশকে ফোন দেয়।
খবর পেয়ে রায়পুর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে গ্রামবাসীর কাছ থেকে নরপিচাশ জাফরকে তাদের হেফাজতে নেয়। একই সাথে পুলিশ শেফালী বেগমের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদনন্তের জন্য লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠায়।
রায়পুর থানার​ ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল জলিল বলেন, আটক জাফরের বিরুদ্ধে থানায় হত্যা মামলা দায়ের করে তাকে আদালতে সোপর্দ করা হবে। ছেলের মাদক সেবনের বিরোধের কারণে হত্যাকান্ড হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে নিশ্চিত হওয়া গেছে।