ঢাকা ০৭:১১ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৮ মে ২০২৪, ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মাইকিং ব্যানার সাটানোর মাধ্যমে বানিয়াচংয়ে মৎস্য সপ্তাহ শুরু।

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ   উৎপাদন বৃদ্ধি করি সুখী সমৃদ্ধ দেশ গড়ি ” এ স্লোগানকে সামনে রেখে মাংকিং করে ব্যাপক প্রচারাভিযান ও ব্যানার ফেস্টুন সাটানোর মধ্য দিয়ে হবিগঞ্জের বানিয়াচংয়ে জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ ২০২০ উদযাপনের আনুষ্ঠানিকতা শুরু করেছে উপজেলা মৎস্য অফিস।

উপজেলা সিনিয়র মৎস্য অফিসার মোহাম্মদ আলমের উদ্দোগে সোমবার ২১ জুলাই সকাল ১০ টায় স্থানীয় উপজেলা পরিষদের সামন থেকে মৎস্য সম্পদ রক্ষায় বিভিন্ন স্লোগান সংবলিত ব্যানার যানবাহনে সাটিয়ে ফিসারিজ বিষয়ে সচেতনতামুলক মাইকিং এর মাধ্যমে প্রচারাভিযান শুরু করা হয়।

স্থানীয় বড়বাজার, গ্যানিংগঞ্জ বাজার ও আদর্শ বাজারে মাংকিং করা হয়। এসময় মৎস্য অফিসের পক্ষ থেকে জানানো হয় পোনা মাছ আহরণ ও ক্রয়বিক্রি বেআইনি। কারেন্ট জাল কোনা জাল দিয়ে মাছ আহরণ নিষিদ্ধ ইত্যাদি।  সিনিয়র মৎস্য অফিসার মোহাম্মদ আলম জানান, সারাদেশের ন্যায় বানিয়াচং উপজেলা মৎস্য অফিসের পক্ষ থেকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ পালনের জন্য নানা কর্মসূচী হাতে নেয়ে হয়েছে।

এর মধ্যে ২য় দিন ২২ জুলাই মৎস্য সেক্টরে বর্তমান সরকারের অগ্রগতি ও সাফল্য বিষয়ে নির্মিত প্রমান্যচিত্র বিভিন্ন গুরুত্বপুর্ণ স্থানে প্রদর্শন করা হবে।

৩য় দিন ২৩ জুলাই মাছে ক্ষতিকর রাসায়নিক প্রয়োগ বিরুধী অভিযান ও হাওর এবং বিভিন্ন বাজারে কারেন্ট জালের ব্যবহার ও বিক্রির বিরুদ্ধে মোবাইল কোর্ট ও মৎস্য বিষয়ক আইন বাস্তবায়নে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করা হবে।

৪র্থ দিন ২৪ জুলাই মৎস্য চাষিদের মাছচাষ বিষয়ক নিবিড় পরামর্শ সেবা প্রদান ও পুকুরের মাটি ও পানি পরীক্ষা করা হবে।

মোহাম্মদ আলম আরও জানান, আগামী ২৭ জুলাই পর্যন্ত সরকার নির্ধারিত সকল কর্মসূচী পালন করা হবে এবং ওই দিন মৎস্য সপ্তাহ সমাপ্ত করা হবে।

তিনি বলেন বানিয়াচং উপজেলার হাওর বাওর গুলো হবে দেশী মাছের ভান্ডার ও অভয়ারণ্য এই হোক জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ ২০২০ এর অঙ্গীকার। আর এ অঙ্গীকার বাস্তবায়নে তিনি সকলকে যতœবান ও সচেতন হয়ে মৎস্য সংরক্ষণ আইন মেনে চলার অনুরোধ জানান।

ট্যাগস

মাইকিং ব্যানার সাটানোর মাধ্যমে বানিয়াচংয়ে মৎস্য সপ্তাহ শুরু।

আপডেট সময় ১১:০১:১৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২১ জুলাই ২০২০

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ   উৎপাদন বৃদ্ধি করি সুখী সমৃদ্ধ দেশ গড়ি ” এ স্লোগানকে সামনে রেখে মাংকিং করে ব্যাপক প্রচারাভিযান ও ব্যানার ফেস্টুন সাটানোর মধ্য দিয়ে হবিগঞ্জের বানিয়াচংয়ে জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ ২০২০ উদযাপনের আনুষ্ঠানিকতা শুরু করেছে উপজেলা মৎস্য অফিস।

উপজেলা সিনিয়র মৎস্য অফিসার মোহাম্মদ আলমের উদ্দোগে সোমবার ২১ জুলাই সকাল ১০ টায় স্থানীয় উপজেলা পরিষদের সামন থেকে মৎস্য সম্পদ রক্ষায় বিভিন্ন স্লোগান সংবলিত ব্যানার যানবাহনে সাটিয়ে ফিসারিজ বিষয়ে সচেতনতামুলক মাইকিং এর মাধ্যমে প্রচারাভিযান শুরু করা হয়।

স্থানীয় বড়বাজার, গ্যানিংগঞ্জ বাজার ও আদর্শ বাজারে মাংকিং করা হয়। এসময় মৎস্য অফিসের পক্ষ থেকে জানানো হয় পোনা মাছ আহরণ ও ক্রয়বিক্রি বেআইনি। কারেন্ট জাল কোনা জাল দিয়ে মাছ আহরণ নিষিদ্ধ ইত্যাদি।  সিনিয়র মৎস্য অফিসার মোহাম্মদ আলম জানান, সারাদেশের ন্যায় বানিয়াচং উপজেলা মৎস্য অফিসের পক্ষ থেকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ পালনের জন্য নানা কর্মসূচী হাতে নেয়ে হয়েছে।

এর মধ্যে ২য় দিন ২২ জুলাই মৎস্য সেক্টরে বর্তমান সরকারের অগ্রগতি ও সাফল্য বিষয়ে নির্মিত প্রমান্যচিত্র বিভিন্ন গুরুত্বপুর্ণ স্থানে প্রদর্শন করা হবে।

৩য় দিন ২৩ জুলাই মাছে ক্ষতিকর রাসায়নিক প্রয়োগ বিরুধী অভিযান ও হাওর এবং বিভিন্ন বাজারে কারেন্ট জালের ব্যবহার ও বিক্রির বিরুদ্ধে মোবাইল কোর্ট ও মৎস্য বিষয়ক আইন বাস্তবায়নে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করা হবে।

৪র্থ দিন ২৪ জুলাই মৎস্য চাষিদের মাছচাষ বিষয়ক নিবিড় পরামর্শ সেবা প্রদান ও পুকুরের মাটি ও পানি পরীক্ষা করা হবে।

মোহাম্মদ আলম আরও জানান, আগামী ২৭ জুলাই পর্যন্ত সরকার নির্ধারিত সকল কর্মসূচী পালন করা হবে এবং ওই দিন মৎস্য সপ্তাহ সমাপ্ত করা হবে।

তিনি বলেন বানিয়াচং উপজেলার হাওর বাওর গুলো হবে দেশী মাছের ভান্ডার ও অভয়ারণ্য এই হোক জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ ২০২০ এর অঙ্গীকার। আর এ অঙ্গীকার বাস্তবায়নে তিনি সকলকে যতœবান ও সচেতন হয়ে মৎস্য সংরক্ষণ আইন মেনে চলার অনুরোধ জানান।